1. dailybanglarkhabor2010@gmail.com : দৈনিক বাংলার খবর : দৈনিক বাংলার খবর
রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪, ১১:১৯ অপরাহ্ন
সর্বশেষ :
ক্রিকেটবিশ্বের কাছে সহায়তা চাইলেন ওয়েস্ট ইন্ডিজ চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুর গেলেন ওবায়দুল কাদের বাংলাদেশিকে ধরিয়ে দিতে বড় অঙ্কের পুরস্কার ঘোষণা এফবিআইয়ের মাওলানা লুৎফুর রহমানের নামাজে জানাজা বাইতুল মোকাররমে জাতীয় পরিচয়পত্রে নামের সংশোধন চেয়ে আবেদন করেছিলেন অভিশ্রুতি পাইকগাছার ৩ ব্যক্তিকে জেল-জরিমানা বাগেরহাটে ৫ বছরের শিশুকে ধর্ষণ চেষ্টা, ভ্যান চালক আটক মোরেলগঞ্জে দাখিল পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁসের অপরাধে যুবক আটক, ২১ শিক্ষককে অব্যাহতি, ৩ জনের নামে মামলা বাগেরহাটে প্রেসরিলিজ গাইড লাইন ও ভিডিও এডিটিং কর্মশালা খালিশপুর কলেজিয়েট গার্লস স্কুলের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ

ডুমুরিয়ায় বিদ্যায়লের পাসে অবৈধ ভাবে চলছে ইটের ভাটা

  • প্রকাশিত: বুধবার, ২২ নভেম্বর, ২০২৩
  • ৪১ বার পড়া হয়েছে

অরুণ দেবনাথ ডুমুরিয়া খুলনা প্রতিনিধি::খুলনার ডুমুরিয়ার কুলবাড়িয়ায় বিদ্যায়লের পাসে অবৈধ ভাবে চলছে এমএসবি ভাটা: পরিবেশের ছাড়পত্র ছাড়া চলতে দেওয়া হবে না বল্লেন ইএনও: পরিবেশ অধিদপ্তর বলছে, তাদের ছাড়পত্র নবায়ন করা হবে না: ভাটা কর্তৃপক্ষ বলছে, যত দিন চালানো যায় তত দিন চালাতে ডুমুরিয়ার আটলিয়া ইউনিয়নে পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র ছাড়া বিকেএমএস ম্যাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মাত্র ১ শ মিটার পাসে চলছে মেসার্স সরদার ব্রিকস, সংক্ষেপে এমএসবি ভাটা। পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র ছাড়া ভাটা চলায় স্বাথ্য ঝুকিতে বিদ্যালয়ের কোমলমতি শিক্ষার্থীরা।
তারা জানান, ভাটার কারনে তাদের স্বাস প্রস্বাশে সমস্যা হয়। শুধু শিক্ষক শিক্ষার্থীরা নয়, বিদ্যালয়ের পাসে কয়েকটি পরিবারের ও জীবন জাপন করাও যেও কাল হয়ে দাড়ীয়েছে এই এমএসবি ইট ভাটা। কেও কেও তো দেশ ছেড়ে ভারতেও চলে যেতে চায় এই ভাটার বিশাক্ত ধোয়ার জন্য। কাঠালতলা-মাগুরখালী সড়কের ২ পাস দিয়ে চলে এই ভাটার কার্যক্রম। সরকারি রাস্তা নিজের ভাটার রাস্তা হিসেবে ব্যাবহার করে এমএসবি ভাটা কতৃপক্ষ। অবৈধভাবে সরকারি নদী খননের মাটি টেনে সড়কের ক্ষতি করছে ১৬ আনা। লোহার ব্রিজে কতৃপক্ষ সতর্কী করণ বিজ্ঞপ্তি দিলেও
কে শোনে কার কথা। চলছে ওভারলোডে ইট টানার কাজ। ড্রাইভারের বেতন বেশি দেওয়া লাগে তাই হেলপার দিয়ে চালানো হয় এই ভাটার ট্রাক গুলো। ঘটিয়েছেন অনেক দূর্ঘটনা। এ বিষয়ে পরিবেশ উপ-মন্ত্রী হাবিবুন নাহার এম.পি. মুঠোফোনে বলেন, এটি খুবই খারাপ বিষয়, সংসদ অধিবেশন চলাকালিন আমার নজরে আসলে বিষয়টি সংসদে উথ্যাপন করতে পারতাম। তবে পরিবেশ অধিদপ্তরের মাধ্যমে ব্যাবস্থ্যা নেওয়ার নির্দেশনা আগে থেকে দেওয়া আছে। এব্যাপারে পরিবেশ অধিদপ্তর খুলনা বিভাগের পরিচালক মোঃ ইকবাল হোসেন বলেন, এই ভাটার ছাড়পত্র আর কখনো নবায়ন করা হবেনা। এদিকে স্পষ্ট কথা জানিয়ে দিয়েছে ডুমুরিয়া উপজেলা নির্বার্হী কর্মকর্তা শরিফ আসিফ রহমান। তিনি বলেন, পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র ছাড়া এই ভাটা চলতে দেওয়া হবে না। সড়কের ক্ষতি, ব্রিজের ক্ষতি, বিদ্যালয় ও পরিবেশের ক্ষতি, ড্রাইভার ছাড়া হেলপার দিয়ে গাড়ী চালানো, নদী খননের মাটি নেওয়া সহ অনেক অভিযোগ রয়েছে পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র না পাওয়া এই ভাটার বিরুদ্ধে। এ ব্যাপারে আটলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান শেখ আব্দুল হালিম মুন্না কঠোর হওয়ার জন্য কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষন
করেন। ভাটা কর্তৃপক্ষ বলছে, যত দিন চালানো যায় তত দিন চালাতে থাকি। ডুমুরিয়া টেশনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ এর ২ শ মিটার পাসের মোঃ আব্দুল কায়ুম জমাদ্দার এর ভাটা ভেঙ্গে ফেলেছে বিদ্যালয়ের জন্য। কিন্তু বিকেএমএস ম্যাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মাত্র ১ শ মিটার পাসে এই এমএসবি ভাটা সরকার বন্ধ করবে, নাকি তারা নিজেরা বন্ধ করবে, সেটিই এখন দেখার বিষয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক বাংলার খবর
Theme Customized By BreakingNews